Gallery

রেসিপিঃ স্যান্ডউইচ পুর (ছবি পোষ্ট)


আপনাদের যাদের ঘরে ছোট সোনামনি বা সোনামানিক আছে, আপনারা জানেন বা দেখেন যে, সোনামনি/মানিকরা সব সময়েই কি খামু কি খামু করতে থাকে, খেয়ে উঠেও আবার খাবার খুঁজে!! আবার আপনি এটা খেতে দিলে বলবে ওটা, ওটা দিলে বলবে এটা! প্রতিদিন আবার একইধরনের খাবার দিলে তো খাবেই না, উপরন্তু কিছু কথা শুনিয়ে দেবে! হা হা হা…

আমাদের দেশের শিশুরা সাধারণত দোকানের বা হোটেলের খাবার পছন্দ করে কিন্তু আমাদের দেশের দোকান বা হোটেলের খাবার গুলো কখনোই (এখনো) নিরাপদ বলে প্রমানিত হয় নাই, সর্বক্ষেত্রেই ভেজাল এবং ফাঁকি (এটা একটা জাতির জন্য খুবই লজ্জার বিষয় এবং আমি নিজেও লজ্জিত)। ছোট শিশুদের জন্য এই খাবার গুলো (ফাষ্ট ফুড সহ নানান এলাকার খাবারের দোকান) খুবই ক্ষতিকর। আমি নিজে বেশ কয়েকটা ফাষ্ট ফুডের খাবারের দোকানের কিচেনে গিয়েছি এবং যারা এই সকল খাবার বানায় (ফুড স্টাফ) তাদের সাথে কথা বলেছি (এরা বেশিরভাগই পড়াশুনার সুযোগ পায় নাই এবং দরিদ্রঘরে সন্তান হিসাবে খুব কম বয়সে হেল্পারের কাজে লেগে পড়ে এবং দেখেই শিখে নেয়), যা খুবই দুঃখজনক ব্যাপার। যারা খাবার বানায় তাদের খাবারের উপর সাধারন সচেতনতাই নেই, ওস্তাদের কাছে যা দেখেছে তাই বানিয়ে দিচ্ছে! (এই বিষয়ে একটা বড় লেখা লেখার ইচ্ছা আছে)

যাই হোক, সোনামনিদের জন্য কার না ইচ্ছা হয় ভাল খাবারের আযোজন করতে! চলুন আজ এমনি একটা সাধারন বিকালের নাস্তা দেখি, স্যান্ডউইচ পুর, ঘরে ব্রেড থাকলেই হল। যত পারুন ঘরেই দোকানের মত করে খাবার তৈরী করুন এবং আমি মনে করি এতেই শিশুরা খুশি হবে এবং বুঝতে পারবে।

খুব সাধারন, দেখা যাক আইটেম গুলো আপনারা চিনতে পারেন কি না!

প্রনালীঃ (ছবি কথা বলে)

ছবি ১


ছবি ২


ছবি ৩


ছবি ৪


ছবি ৫


ছবি ৬


ছবি ৭


ছবি ৮


ছবি ৯


ছবি ১০, ব্রেডে দেয়ার আগে কিছু মেয়নেজ বা ক্রীম দিয়ে মাখিয়ে নিতে পারেন।

সবাইকে শুভেচ্ছা। আসছি আরো মজাদার নুতন নুতন খাবারের রেসিপি নিয়ে। ভাল থাকুন।

কৃতজ্ঞতাঃ মানসুরা হোসেন

7 responses to “রেসিপিঃ স্যান্ডউইচ পুর (ছবি পোষ্ট)

  1. বাইরের খাবার যত কম খাওয়া যায় ততই ভাল। কিন্তু শিশুরা এটা বুঝতে চায় না। ঘরের ভাল খাবার ওদের মুখে উঠে না। আমি আমার বড় ছেলে নিয়ে ভুক্তভোগী। মেয়েটা তেমন জ্বালায় নাই।

    Like

  2. Shahadat Bhai, please post more recipes like this… Which will be easy, quick and tasty please…………. 🙂
    by the way, fuchka recipe still pending, if you can remember that request ;)) thanks a lot for your yummy recipies.

    Like

  3. আমার ছেলেটার ও বাইরের খাবারের দিকে ঝোঁক, আপনার কিছু রেসিপি ঘরে করে দেই, পছন্দ করে, সাথে ছেলের বাবা ও।

    Like

[প্রিয় খাদ্যরসিক পাঠক/পাঠিকা, পোষ্ট দেখে যাবার জন্য ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা। নিম্মে আপনি আপনার মন্তব্য/বক্তব্য কিংবা পরামর্শ দিয়ে যেতে পারেন। আপনার একটি একটি মন্তব্য আমাদের অনুপ্রাণিত করে কয়েক কোটি বার। আপনার মন্তব্যের জন্য শুভেচ্ছা থাকল। অনলাইনে ফিরলেই আপনার উত্তর দেয়া হবে।]

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / পরিবর্তন )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / পরিবর্তন )

Connecting to %s