গ্যালারি

রেসিপিঃ সয়ামিট রান্না (এক্সপেরিমেন্ট)


রান্না পুরাই মাষ্টার বনে গেছি এটা আমি এখনো মনে করি না। রান্না হচ্ছে এমন একটা শিল্প যাতে প্রতিদিনই আপনার সামনে নূতন নূতন বিষয় আসবে এবং এই নূতন নূতন বিষয় আপনাকে শিখে যেতেই হবে। এক জন্মে রান্নার সব কিছু শিখে ফেলা সহজ কাজ নয় বলে আমি মনে করি। রান্নাটা এমন একটা বিষয় যে, যাতে আছে থিউরি এবং সাথে প্যাক্টিক্যাল! আপনাকে থিউরি জেনে বসে থাকলে চলবে না, হাতে কলমে প্রমান করতে হবে। তবে রান্নায় থিউরি জানা মানুষের সংখ্যা একটু বেশি এই দুনিয়ায়! হা হা হা! থিউরি জানা অনেক মানুষদের প্যাক্টিক্যালে নিয়ে আসলে কেঁদে পালাবেন। আসলে একজন ভাল রান্নাকারীকে দুই দিকেই সমভাবে খেয়াল রাখতে হয়। থিউরির পাশাপাশি যিনি যত বেশি প্যাক্টিক্যাল করবেন তিনি তত ভাল রান্নাকারী হয়ে উঠবেন।

যাই হোক, আমি প্রতিদিন অফিস থেকে ফিরে কিছু না কিছু রান্না করতে চাই। কোনদিন রান্না করতে পারি, কোনদিন পারি না। আমার রান্না গুলো শুধু আমার জন্যই করি না, আপনাদের রেসিপি দেখাতেও আমার যে চেষ্টা থাকে সেটাও সফল করি। আর এইজন্য আমি মাঝে মাঝে এক্সপেরিমেন্ট করি। নিয়মিত আমাদের খাবারের পাশাপাশি এমন এক্সপেরিমেন্ট অনেক সময়েই ভাল লাগে! (এক্সপেরিমেন্ট বলছি এই কারনে যে এই রকম খাবার আগে কখনো খাই নাই!)

আজকের এক্সপেরিমেন্ট হচ্ছে সয়ামিট রান্না, ডাইরেক্ট! সয়ামিট সাধারণত নুডুলস বা অন্য খাবারের সাথে ব্যবহার হয়। এভাবে সরাসরি রান্না আমি আর দেখি নাই, তবুও রান্না করে দেখলাম, খাওয়া যায় কি না বা চলে কি না। সয়ামিটের ধরন এবং আমাদের সাধারণ মশলার মিশ্রনে রান্নার পর খেয়ে দেখলাম, চলে তবে দৌড়ায় না!

পরিমান ও প্রস্তুত প্রনালীঃ

২৫০ গ্রামের মত সয়ামিট গা গা পানিতে সিদ্ধ করে নিলাম।


ঝাজরিতে ফেলে সয়ামিট গুলোর পানি ঝরিয়ে নিলাম।


সাথে মাংশের মিক্স মশলা নিয়েও এই এক্সপেরিমেন্ট!


তেল গরম করে দুইটা এলাচি, সামান্য লবন যোগে পেঁয়াজ কুঁচি ভেজে তাতে সামান্য পানি দিয়ে রসুন ও আদা বাটা দিয়ে কষিয়ে মাংসের মশলা মিক্স দিয়ে একটা ঝোল বানিয়ে নিলাম।


ঝোলের তেল উঠে গেলে পানি ঝরিয়ে রাখা সয়ামিট গুলো দিয়ে দিলাম এবং ভাল করে মিশিয়ে নিলাম।


এক কাপ পানি দিয়ে ঢাকনা দিয়ে মিনিট ১৫ মাঝারি আঁচে রেখে দিলাম।


এই অবস্থায় এসে যাবে। কয়েকটা কাঁচা মরিচ দেয়া হল।


আরো কিছু সময় মাঝারি আঁচে রাখা হল।


ফাইন্যাল লবন এবং স্বাদ দেখা হল।


পরিবেশনের জন্য প্রস্তুত। আমি পরোটা দিয়ে খেয়েছি। চলে তবে দৌড়ায় না! সাথে আমার রান্না টেষ্টার বুলেট খেল এবং জানলো, সয়ামিটের সাথে অবশ্যই অন্য কিছু দিতেই হবে। সে জানালো, ফুলকপি বা নূতন আলু দিলেও নাকি খাওয়া জমতো! আমি বললাম, এখন খেয়ে নাও, আগামীতে আরো আরো এক্সপেরিমেন্ট আছে! সব সময় সব কিছু ভাল এবং সুস্বাদু হবে, এমন কথা নেই!

সবাইকে শুভেচ্ছা। আপনারা সবাই ভাল থাকুন। চলুক আমাদের খাবার দাবার। খাবারের মত ভালবাসা এই দুনিয়াতে আর কি আছে?

Advertisements

9 responses to “রেসিপিঃ সয়ামিট রান্না (এক্সপেরিমেন্ট)

  1. ঠিকই বলেছেন , সয়ামিট এমনি এমনি রান্না চলে তবে দৌড়ায় না । সয়ামিট আলু সহকারে ভুনা করে রান্না করলে খাওয়া যায় । তবে আগে সিদ্ধ দিলে এটার মজা নষ্ট হয়ে যায় ।আমি আমার অভিজ্ঞতা থেকে বলছি । ভাতের সাথে জমে না ।

    Like

    • ধন্যবাদ বোন।
      আরো কিছু সয়ামিট আছে। ছোট করে একটা রেসিপি দিন। সয়ামিট সিদ্ধ না করে খাওয়া যায় কিনা এটা আমি দেখি নাই। জানলে জানাবেন।

      শুভেচ্ছা।

      Like

      • সয়ামিট রান্নার আগে পানিতে ভিজিয়ে রাখবানে । ভালো করে ধুয়ে পানি ঝরিয়ে নিবেন । তারপর আপনি যেভাবে মশলা ভুনে ঝোল করে নেন । ঠিক একই প্রক্রিয়ায় মশলা ভূনে তাতে আলু টুকরা করে দিয়ে দেই । আলু হাফ সিদ্ধ হয়ে গেলে সয়ামিট দিয়ে দেই ।
        পানি দেই না । পানি দিলে সয়ামিট টা কেমন পানসে হয়ে যায় । খেতে ভালো লাগে না ।
        পুরো রান্নায় চুলার আচ কম দিয়ে রাখতে হবে যাতে পুড়ে না যায় ।

        Like

  2. hello,ami apnar rannar bhokto,thank you recipe r jonno.soyameat indian akta kheyechilam oita better chilo,eta beshi jhaal dile tasty hoy r alu,capcicum,kacha morich,prawn dite paren.

    Like

    • ধন্যবাদ বোন।
      সয়ামিট আমি খালি রান্না করার ব্যাপারটা কোথায়ও দেখি নাই। সয়ামিট এর সাথে কিছু না কিছু দিতেই হয়। আমার রান্নার চেষ্টাটা ছিল খালি রান্না করে স্বাদ দেখা।

      ধনবাদ আপনাকে। আশা করি আগামীতে রান্না করলে আপনার কথা মনে রাখবো।

      শুভেচ্ছা। আশা করি মাঝে মাঝে এসে দেখে যাবেন।

      Like

  3. কী আশ্চর্য! এই জিনিসের একটা প্যাকেট এনে ক’দিন ধরেই ভাবছি…কীভাবে রাঁধে কে জানে? আর আজকে এসে দেখলাম আপনারা আলোচনা করছেন। বাহ্‌, বেশ! আমি কখনো খাই নি, তবে শুনেছি ঠিকমত রান্না করলে নাকি একেবারে মাংসের মত লাগে! সুলতানার প্রসেসটা মনে ধরলো। সয়ামিটে পানি খুব বেশি দিলে নাকি স্বাদটা মরে যায়!

    Like

  4. BHAI AMR BON SOYA MEAT CHINGRI MACH DIYE VUNA KORE KHUBBBBBBBBBB VALO LAGE KHETE TRY KORE DEKTE PAREN…SUDU CHOLE NA DOURANO ITEM SOYA WITH CHINGRI VUNA … 🙂

    Liked by 1 person

[প্রিয় খাদ্যরসিক পাঠক/পাঠিকা, পোষ্ট দেখে যাবার জন্য ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা। নিম্মে আপনি আপনার মন্তব্য/বক্তব্য কিংবা পরামর্শ দিয়ে যেতে পারেন। আপনার একটি একটি মন্তব্য আমাদের অনুপ্রাণিত করে কয়েক কোটি বার। আপনার মন্তব্যের জন্য শুভেচ্ছা থাকল। অনলাইনে ফিরলেই আপনার উত্তর দেয়া হবে।]

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / পরিবর্তন )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / পরিবর্তন )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / পরিবর্তন )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / পরিবর্তন )

Connecting to %s